No icon

ইসলামবিদ্বেষ থেকেই ৪ মুসলমানকে হত্যা করা হয়েছে: কানাডার প্রধানমন্ত্রীর স্বীকারোক্তি

ইসলামবিদ্বেষ থেকেই কানাডায় এক মুসলিম পরিবারের চার সদস্যকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছে বলে স্বীকার করেছেন সেদেশের প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো।

মঙ্গলবার কানাডার হাউস অব কমন্সে বক্তৃতাকালে তিনি বলেন, এ হত্যাকাণ্ড কোনো দুর্ঘটনা নয়। এটা একটা সন্ত্রাসী হামলা। ঘৃণা থেকে প্ররোচিত হয়ে এ হামলা চালানো হয়েছে। হামলায় আহত হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন শিশুটি দ্রুত সেরে উঠবে বলে আশা প্রকাশ করেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী।

এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ছোট শিশুটি দ্রুত সেরে উঠবে বলে তারা সবাই আশা করছেন। যদিও তারা জানেন, শিশুটি এই কাপুরুষোচিত হামলার কারণে সৃষ্ট দুঃখ-কষ্ট ও ক্ষোভ নিয়ে বেঁচে থাকবে।

কানাডার পুলিশ জানিয়েছে, ইসলামবিদ্বেষ থেকেই পূর্বপরিকল্পিতভাবে পরিবারটির সদস্যদের ওপর এ হামলা চালানো হয়েছে। হামলায় অভিযুক্ত ২০ বছর বয়সী কানাডিয়ান তরুণ নাথানিয়েল ভেলটম্যান আটক করেছে পুলিশ। তার বিরুদ্ধে হত্যা ও হত্যা চেষ্টার মামলা দায়ের করা হয়েছে।

পরিবারের অন্য সদস্যদের সঙ্গে হতাহতেরা

 

কানাডার অন্টারিও প্রদেশের লন্ডন শহরে গত রোববার এ হত্যাকাণ্ড ঘটে। নিহত চারজনের মধ্যে দুই নারী ও এক শিশু রয়েছে। পরিবারটির ৯ বছর বয়সী এক শিশু এ হামলা থেকে বেঁচে গেছে। আহত অবস্থায় একটি হাসপাতালে তার চিকিৎসা চলছে।

কানাডাসহ পাশ্চাত্যের দেশগুলোতে দীর্ঘ দিন ধরেই ইসলামবিদ্বেষ ছড়ানো হচ্ছে। আমেরিকার সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও ফ্রান্সের বর্তমান প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাক্রনের মতো নেতারা সাম্প্রতিক বছরগুলোতে এ বিদ্বেষ ছড়াতে ভূমিকা রেখেছেন। ইরানসহ অনেক মুসলিম দেশই এ ব্যাপারে পাশ্চাত্যের নেতাদেরকে সতর্ক করে আসছে। কিন্তু তারা এটাকে গুরুত্ব দিচ্ছে না।#

Comment As:

Comment (0)