No icon

সোলাইমানি হত্যার দায়ে ট্রাম্পের প্রাণদণ্ড হওয়া উচিত বললেন মার্কিন সাংবাদিক

ইরানের ইসলামি গার্ড বাহিনী বা আইআরজিসি'র আল কুদস বাহিনীর সাবেক প্রধান জেনারেল কাসেম সোলাইমানিকে হত্যার দায়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং তার সরকারের শীর্ষ স্থানীয় কর্মকর্তাদের প্রাণদণ্ড হওয়া উচিত। ইরানের ইংরেজি নিউজ চ্যানেল প্রেসটিভিকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এ দাবি জানিয়েছেন মার্কিন লেখক, সাংবাদিক এবং রেডিও উপস্থাপক কেভিন ব্যারেট।

'প্রতিশোধ: কঠোর প্রতিশোধ'

তিনি জেনারেল সোলাইমানি নিহত হওয়ার ঘটনাকে হত্যাকাণ্ড হিসেবে উল্লেখ করে বলেন,  মিথ্যা এবং অসত্য দাবির ওপর ভিত্তি করে এটি ঘটানো হয়েছে। শুধু হত্যাকাণ্ড নয় বরং এটি যুদ্ধাপরাধ বলেও উল্লেখ করে তিনি বলেন, একে পুরোপুরি অবৈধই বলতে হবে।

তেহরানে জেনারেল সোলাইমানির জানাজায় মানুষের ঢল

ইসলামিক এবং আরবি স্টাডিজের ওপর পিএইচডি ডিগ্রি অর্জনকারী ব্যারেট দৃঢ়তার সঙ্গে বলেন, আমেরিকায় এখনও খুনিদের প্রাণদণ্ড কার্যকর করা হয় তাই ট্রাম্প এবং তার পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেওসহ এ অপরাধের সঙ্গে যারা জড়িত তাদের সবার প্রাণদণ্ড হওয়া উচিত।

সোলাইমানিকে হত্যার দায়ে ট্রাম্পের প্রাণদণ্ড হওয়া উচিত: কেভিন ব্যারেট

বাগদাদ আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে ৩ জানুয়ারি বিমান হামলা চালিয়ে জেনারেল সোলাইমানি, ইরাকের আধা সামরিক বাহিনী বা পিএমইউ'র সেকেন্ড-ইন-কমান্ড আবু মাহদি আল-মুহানদিসসহ ১০ ব্যক্তিকে হত্যা করেছে আমেরিকা। 

ইরানি জনতার দাবি: প্রতিশোধ-কঠিন প্রতিশোধ

Comment As:

Comment (0)